Logo
নোটিশ :
দেশর সকল জেলা-উপজেলা,থান-বিশ্ববিদ্যালয় ও সরকারি কলেজ সমূহে প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে...মেধাবীদের কাছ থেকে আবেদন আহ্বায়ন করা যাচ্ছে । যোগাযোগ: ০১৭৭২০২৯০৪৮।
হলিউডে বহুবিবাহ ও বিচ্ছেদ তাদের

হলিউডে বহুবিবাহ ও বিচ্ছেদ তাদের

বাংলার কন্ঠস্বর // বন্ধুত্ব-প্রেম-বিয়ে তারপর কিছুদিন না যেতেই বিচ্ছেদ। বিনোদন জগতে এ যেন এক সাধারণ ঘটনা। বিশেষ করে, হলিউড ও বলিউডের ইন্ডাস্ট্রিতে এই ধরনের চিত্র উল্লেখযোগ্য হারে দেখা যায়। এছাড়া বহুবিবাহ ও বিচ্ছেদের ঘটনাও নেহাত কম নয়। একসঙ্গে কাজ করতে গিয়ে ভালোলাগা, তা থেকে ভালোবাসা, তারপর বিয়ে এবং একপর্যায়ে বিচ্ছেদ।

সেই ধারাবাহিকতায় সম্প্রতি নিজের পঞ্চম বিবাহ বিচ্ছেদের ঘোষণা দিয়েছেন হলিউড অভিনেত্রী পামেলা অ্যান্ডারসন। বহুদিন প্রেম করার পর গত ২০ জানুয়ারি তিনি বিয়ে করেছিলেন নামী প্রযোজক জন পিটার্সকে। কিন্তু মাত্র ১২ দিনের মাথায় আলাদা হয়ে যাওয়ার পাকা সিদ্ধান্ত নিয়ে ফেলেছেন তারা। পামেলা নিজেই সংবাদ মাধ্যমকে এ কথা জানান।

তবে শুধু পামেলা নয়, বিশ্বের সবচেয়ে বড় ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রি হলিউডে এমন কাণ্ড আরও অনেক অভিনেতা-অভিনেত্রীই ঘটিয়েছেন। তারা সকলে পামেলার চেয়ে একধাপ এগিয়েও রয়েছেন। অর্থাৎ পামেলার চেয়ে বেশি বার বিয়ে করেছেন এবং বেশি বার বিবাহবিচ্ছেদ ঘটিয়েছেন। তাদের সম্পর্কেও তবে একটু জেনে নেয়া যাক।

লানা টার্নার: ১৯৪০ সাল নাগাদ লানা টার্নার হলিউডের সবচেয়ে জনপ্রিয় অভিনেত্রী হয়ে ওঠেছিলেন। তিনি অভিনয়ে যেমন ছিলেন পটু, বিয়ের ক্ষেত্রেও তাই। সব মিলিয়ে তিনি মোট আট বার বিবাহবিচ্ছেদ করেছিলেন। এর মধ্যে দুইবার তিনি একই ব্যক্তিকে বিয়ে করেন। নয় নম্বর স্বামীর সংসারে থাকাকালীন তার মৃত্যু হয়।

জীবদ্দশায় বহুবিবাহ ও বিচ্ছেদ সম্পর্কে এই অভিনেত্রী বলেছিলেন, ‘আমার লক্ষ্য ছিল একজনকে বিয়ে করে সাত সন্তানের মা হওয়ার। কিন্তু হয়েছে ঠিক উল্টোটা।’

এলিজাবেথ টেলর: হলিউডের সর্বকালের সবচেয়ে জনপ্রিয় অভিনেত্রীদের একজন হলেন এলিজাবেথ টেলর। বিয়ে ও বিচ্ছেদের ক্ষেত্রে তিনিও পিছিয়েও নেই। টেলর সব মিলিয়ে আট বার বিয়ে করেছেন এবং সাত বার বিবাহবিচ্ছেদ। আটবারের মধ্যে পরপর দুইবার তিনি বিয়ে করেন কিংবদন্তি রিচার্ড বার্টনকে। এই দুটি বিয়ে টেকে তিন বছর।

এলিজাবেথ টেলরের দাবি, ‘আমি অত্যন্ত কমিটেড একজন স্ত্রী। পরেও তাই থাকব। এতগুলো বিয়ের পরেও আমি তাই-ই আছি।’

ল্যারি কিং: ছোটপর্দার একসময়কার একচ্ছত্র অধিপতি অভিনেতা ল্যারি কিং। সব মিলিয়ে তিনি মোট সাত বার বিয়ে এবং ছয় বার বিবাহবিচ্ছেদ করেন। তার ছয় নম্বর স্ত্রী শন সাউথউইকের সঙ্গে বিয়ের দশ বছর পর বিবাহবিচ্ছেদের মামলা দায়ের করেছিলেন। কিন্তু পরে ক্লান্ত হয়ে সেটার শুনানিতে যাননি।

ছয় নম্বর স্ত্রী সম্পর্কে অভিনেতা ল্যারি কিং বলেছিলেন, ‘শন সাউথউইকই একমাত্র আমার সঙ্গে দুই সংখ্যার বছর কাটাতে পেরেছে। কারণ আমাদের মধ্যে বোঝাপড়া অন্য স্ত্রীদের চেয়ে তুলনামূলক ভালো ছিল।’

পাঠকের মতামত...

এ পোষ্টটি ভাল লাগলে বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




banglarkonthosor.com © 2015 RM Malti Midea
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com