Home » বরিশাল » বরিশালের মুলাদীতে যুবককে জবাই!

বরিশালের মুলাদীতে যুবককে জবাই!

বাংলার কন্ঠস্বর // বরিশালের মুলাদী উপজেলায় জনৈক এক যুবককে জবাই করে হত্যা করা হয়েছে। স্থানীয় থানা পুলিশ ইমরান হোসেন নামের ওই যুবকের লাশ বৃহস্পতিবার সকালে সফিপুর ইউনয়নের আমানতগঞ্জ বাজার সংলগ্ন বিল থেকে উদ্ধার করে। তবে কে বা কারা পঁচিশোর্ধ্ব যুবককে নৃশংসভাবে হত্যা করল তা তাৎক্ষণিক নিশ্চিত হওয়া যাচ্ছেনা।

পুলিশ বলছে- সকালে লাশটি খোলা মাঠে পড়ে থাকতে দেখে স্থানীয়রা থানায় খবর দেয়। পরে ওসির নেতৃত্বে একদল পুলিশ গিয়ে লাশটি উদ্ধার করে। এবং নিহত যুবক পার্শ্ববর্তী বালিয়াতলি গ্রামের আলতাফ হোসেন ব্যাপারী ছেলে শনাক্ত করে।

মুলাদী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ফয়েজ উদ্দিন বরিশালটাইমসকে বলেন- যুবকের গলায় ধারালো অস্ত্রের আঘাতসহ থুতনিতে কোপের চিহ্ন দেখা গেছে। প্রাথমিকভাবে যুবককে খুন করে বিলে ফেলে রাখার আলামত পাওয়া গেছে। লাশ ময়নাতদন্তের জন্য বরিশাল শেবাচিম হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। তবে এই হত্যাকান্ডে কে বা কারা জড়িত তা তদন্ত না করে তাৎক্ষণিক বলা সম্ভব হচ্ছে না।’

অন্যদিকে এর একদিন আগে বুধবার সন্ধ্যারাতে বাকেরগঞ্জ উপজেলায় নিজঘর থেকে মো. দুলাল হাওলাদার (৫৫) নামের এক অ্যাম্বুলেন্সচালকের মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। তিনি পটুয়াখালী সদর মা ও শিশু হাসপাতালের অ্যাম্বুলেন্সচালক ছিলেন।

পুলিশ ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা গেছে- দুলাল হাওলাদারের স্ত্রী ও সন্তানেরা চাকরির কারণে ঢাকায় বসবাস করেন। তিনি একাই উপজেলার বৈরমখার দীঘিরপাড় সংলগ্ন তার নিজ বাড়িতে থাকতেন। দীর্ঘদিন ধরে দুলাল বিভিন্ন রোগে ভুগছিলেন।

পুলিশ ধারনা করছে- মঙ্গলবার রাতে কোনো একসময় তার মৃত্যু হয়। বুধবার সারাদিন তার কোনো সাড়াশব্দ না পেয়ে এলাকার লোকজন ঘরে গিয়ে দরজা বন্ধ দেখে ডাকাডাকি করেন। এতেও কোনো আলাপচারি না পেয়ে বাকেরগঞ্জ থানা পুলিশকে খবর দেন। পরে সন্ধ্যায় পুলিশ বাসার দরজা ভেঙে দুলাল হাওলাদারের মরদেহ উদ্ধার করে।

বাকেরগঞ্জ থানার ওসি আবুল কালাম বলেন, প্রাথমিক অবস্থায় ধারণা করা হচ্ছে তার স্বাভাবিক মৃত্যু হয়েছে।’

পাঠকের মতামত...

Total Page Visits: 17 - Today Page Visits: 1

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*