Home » বরিশাল » মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর দেওয়া উপহার নৌ এম্বুলেন্স পরে আছে অবহেলায়। রোগীদের দূর্ভোগ!

মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর দেওয়া উপহার নৌ এম্বুলেন্স পরে আছে অবহেলায়। রোগীদের দূর্ভোগ!

রাজিব তাজ // বরিশাল জেলার মধ্যে মেহেন্দিগঞ্জ নামক উপজেলা হলো একটি দ্বীপ অঞ্চল। এই দ্বীপ অঞ্চলে যাতায়াত করতে হলে নৌপথ ছাড়া কোন ব্যবস্থা নেই।
কিন্তু মাননীয় প্রধানমন্ত্রী বরিশাল জেলার দ্বীপাঞ্চল মেহেন্দিগঞ্জের এই দুরবস্থা দেখে রোগীদের জন্য এক বিশেষ উপহার প্রদান করেন এই নৌ এম্বুলেন্স।
কিন্তু এই নৌ এম্বুলেন্স বর্তমানে কোন কাজেই আসছে না হাসপাতাল অথবা রোগীদের। মেহেন্দিগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেই কোন অপারেশন থিয়েটার। এবং নরমাল ডেলিভারি করতে গিয়ে যদি কোন রোগী মৃত্যু শরনার্থী হন, তখন দ্রুততার সাথে হাসপাতাল থেকে নার্সরা বরিশাল শেরে-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রেফার (প্রেরণ) করেন। যা রোগীদের জন্য আরেক দুর্ভোগের কারন।
এমতবস্থায় রোগীদের ভাড়ায় চালিত বোটে বরিশাল যেতে হয়।
এ ব্যাপারে রোগী রুপা (ছদ্ম নাম) রোগীর সাথে থাকা রুপার ভাই বলেন, ভাড়ায় চালিত বোট থেকে হয়তো হাসপাতালে ডাক্তার কমিশন পায়, তাই মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর দেওয়া বোট এভাবে ফেলে রেখে আমাদের ভাড়ায় চালিত বোটে বরিশাল পাঠায়।
এদিকে বোট ড্রাইভার আসাদুলের সাথে কথা বলে জানা যায়, পাতারহাট লঞ্চ ঘাট থেকে বোট ছাড়া হলে তালতলি অবদি যায়, তালতলি থেকে শেবাচিম যাওয়ার রাস্তাটা অত্যন্ত খারাপ হওয়ার রোগীদের আরো যন্ত্রনা সহ্য করতে হয়।
সজল নামে এক রোগী বলেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর দেওয়া এম্বুলেন্স থাকলে পাতারহাট লঞ্চ ঘাট থেকে বরিশাল লঞ্চঘাট পর্যন্ত যেতে পারতাম, অর্ধেক পথে আর থেমে থাকতে হতো না।
এ ব্যাপারে মেহেন্দিগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে পঃ পঃ স্বাস্থ্য কর্মকর্তা এস এম রমিজ আহমেদ এর সাথে কথা বলার সময় সে জানায় দীর্ঘদিন পর্যন্ত স্পীড বোটের ইঞ্জিন সমস্যা থাকার কারনে চলাচল বন্ধ এবং উপরন্তু কর্মকর্তাদের বেশ কয়েকবার জানানো হলেও তেমন কোন পদক্ষেপ নিতে দেখা যায় নি।
এ বিষয়ে বরিশাল সিভিল সার্জন ডাঃ মনোয়ার হোসেনের সাথে কথা বলে জানা যায়, স্পীড বোট টি দীর্ঘদিন যাবৎ অচল অবস্থায় থাকার কারনে ইঞ্জিনে সমস্যার সৃষ্টি হয়েছে। এবং খরচ বেশি হওয়ার কারনে স্পীড বোট টি ব্যবহার করা রোগীদের পক্ষে সম্ভব হচ্ছে না।

পাঠকের মতামত...

Print Friendly, PDF & Email
Total Page Visits: 30 - Today Page Visits: 1

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*