ঢাকাWednesday , 13 April 2016
  1. অপরাধ
  2. অর্থনীতি
  3. আইন ও আদালত
  4. আন্তর্জাতিক
  5. এক্সক্লুসিভ
  6. করোনা আপডেট
  7. খুলনা
  8. খেলাধুলা
  9. গণমাধ্যম
  10. চট্টগ্রাম
  11. জাতীয়
  12. ঢাকা
  13. তথ্য-প্রযুক্তি
  14. প্রচ্ছদ
  15. প্রবাসে বাংলাদেশ

ঝালকাঠিতে জেলা ছাত্রলীগের সহসভাপতি বিরুদ্ধে ধর্ষনের অভিযোগ মামলা

Link Copied!

 

রমজানুল মোরশেদ,ঝালকাঠি প্রতিনিধি : ঝালকাঠিতে রাষ্ট্র বিজ্ঞান অনার্স ২য় বর্ষের ছাত্রীকে ধর্ষনের ঘটনায় জেলা ছাত্রলীগের সহসভাপতি রাজু মল্লিকসহ দুই জনের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়েছে। বুধবার ঝালকাঠি নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইবুনাল আদালতে ধর্ষিতা বাদী হয়ে এ নালীশি মামলা দায়ের করলে আদালত ঝালকাঠি সদন থানার ওসিকে সরাসরি এজাহার রেকর্ড করার নির্দেশ দিয়েছেন। ধর্ষিতার পক্ষে আদালতে মামলা পরিচালনা করেন এ্যাড. ফয়সাল খান। অন্যদিকে মামলা দায়েরের পর জেলা ছাত্রলীগের সহসভাপতি রাজু মল্লিক সহ তার নেপথ্য শেল্টাদাতারা মামলা তুলে নেয়ার জন্য নানা প্রকার হুমকি-ধূমকি দেয়ায় পরিবারটি নিরাপত্তাহীনতায় ভূগছে বলে অভিযোগ উঠেছে। ঝালকাঠি পুলিশের দুই উর্ধতন কর্মকর্তা ইতিমধ্যে ধর্ষিতা কলেজ ছাত্রীর সাথে আলাপ করে ঘটনার বিবরন শুনেছে ও আইনগত সহযোগীতার আশ্বাস দিয়েছে বলে জানা গেছে।

মামলার বিবারনে ও বাদী জানায়, আসামী জেলা ছাত্রলীগের সহসভাপতি রাজু মল্লিক ২০১৪ সালের ডিসেম্বর মাসে একটি মোবাইলের দোকানে ফাক্সি লোড করার সময় কলেজ ছাত্রী বাদীনির মোবাইল নম্বার সংগ্রহ করে যোগাযোগ শুরু করে। এক পর্যায় ল্যম্পট রাজু মল্লিকের সাথে কথাবার্তার সূত্র ধরে তাদের মধ্যে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। ইতিমধ্যে আসামী নিজেকে ছাত্রলীগের বড় নেতা দাবী করে উপর মহলে তার হাত রয়েছে বলে কলেজ ছাত্রীর সরল বিশ্বাসের সুযোগে প্রাইমারী স্কুলের শিক্ষকের চাকুরি নিয়ে দেয়ার কথা বলে ১লাখ টাকা চায়। গত ২১ জানুয়ারী ২০১৬ তারিখ চাকুরির নামে তার কাছ থেকে আসামী নগদ ৫০ হাজার টাকা হাতিয়ে নেয়। পরবর্তীতে জেলা ছাত্রলীগের সহসভাপতি রাজু মল্লিক বাদীনিকে বিয়ের প্রস্তাব দেয় ও তার মা-বাবার সাথে আলাপ করিয়ে দেয়ার কথা বলে ২০ ফেব্রুয়ারী সকাল ১০টায় তার পিতার বাসায় নিয়ে যায়। বাসায় ডুকে তার পিতামাতা কে না পেলেও আসামীর ছোট বোন ২নং আসামী মোসা: মিমি আক্তারকে দেখতে পায়।

সে তাদের জন্য চা করে আনার কথা বলে রুমের বাহির থেকে ছিটকানি আটকে দিলে নারীলোভী রাজু কলেজ ছাত্রীকে তার ইচ্ছার বিরুদ্ধে জোরপূর্বক ধর্ষন করে ও তার নগ্ন ছবি মোবাইলে ধারন করে এবিষয়ে কাউকে জানালে তার এসব ছবি ইন্টারনেটে ছড়িয়ে দেয়ার হুমকি দেয়। পরে ২নং আসামী মোসা: মিমি দরজা ছিটকানি খুলে চা নিয়ে প্রবেশ করলে নির্যাতিতা ছাত্রীটি কাঁদতে কাঁদতে তার বাসায় ফিরে এসে পিতা-মাতার কাছে ঘটনার বিস্তারিত খুলে বলে। ২২ ফেব্রুয়ারী বিকাল ৫টায় ধর্ষিতার পিতামাতা বিষয়টি ধর্ষক জেলা ছাত্রলীগের সহসভাপতি রাজু মল্লিকের পিতামাতাকে জানালে তারা কলেজ ছাত্রীকে পুত্র বধূ হিসাবে গ্রহনের আশ্বাস দিয়ে সময় ক্ষেপন করে। পরে স্থানীয় গন্যমান্য ব্যক্তিবর্গ কে অভিহিত করলে রাজু মল্লিক ধর্ষনের ঘটনা অস্বীকার করায় কলেজ ছাত্রী ১২ এপ্রিল থানায় মামলা দায়ের করতে গেলে বিলম্ব হওয়ায় আদালতে মামলা করার পরামর্শ দেন।

এবিষয়ে জেলা ছাত্রলীগের সাবেক এক শীর্ষ নেতা সহ যুবলীগের একাধিক নেতা জানায়, নব্য ছাত্রলীগে এসেই উক্ত রাজু মল্লিক ঢাকায় থাকা আওয়ামীলীগের এক নেতার শেল্টারে হঠাৎ করেই সহসভাপতি পদ বাগিয়ে নেয়। তাছাড়া তার বিরুদ্ধে একাধিক নারী ঘটিত ঘটনায় যুক্ত থাকার ঘটনা রয়েছে। এ ব্যাপারে জেলা ছাত্রলীগের সহসভাপতি রাজু মল্লিক জানায়, বাদীনি সাথে তার ভালোবাসা সম্পর্ক ছিল তবে অন্যসকল অভিযোগ সত্য নয়। কলেজ ছাত্রী ও তার অভিভাবকের সাথে এবিষয়ে মিমাংসা হয়ে গেছে ও তাদের ২৫ হাজার টাকার জড়িমানা প্রদান করবেন বলে জানিয়েছে। তবে ধর্ষিতা কলেজ ছাত্রী জানায়, জেলা ছাত্রলীগের সহসভাপতি রাজু মল্লিক  প্রতারক, অর্থ ও নারীলোভী। সে ভালোবাসার অভিনয় করে তার জীবনটা নষ্ঠ করে দিয়েছে উল্লেখ করে ‘সে যেনো আর কোন মেয়ের জীবন নষ্ট করতে না পারে সে জন্য তার দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবী করেছেন।

এই সাইটে নিজম্ব নিউজ তৈরির পাশাপাশি বিভিন্ন নিউজ সাইট থেকে খবর সংগ্রহ করে সংশ্লিষ্ট সূত্রসহ প্রকাশ করে থাকি। তাই কোন খবর নিয়ে আপত্তি বা অভিযোগ থাকলে সংশ্লিষ্ট নিউজ সাইটের কর্তৃপক্ষের সাথে যোগাযোগ করার অনুরোধ রইলো।বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বেআইনি।