Home » অন্যান্য » মহসিনের আসনে উপ-নির্বাচন ৮ ডিসেম্বর

মহসিনের আসনে উপ-নির্বাচন ৮ ডিসেম্বর

বাংলার কন্ঠস্বর প্রতিবেদকপ্রয়াত সমাজকল্যাণমন্ত্রী সৈয়দ মহসিন আলীর শূন্য আসনের (মৌলভীবাজার-৩) উপ-নির্বাচন ৮ ডিসেম্বর।

নির্বাচন কমিশন সচিবালয়ের মিডিয়া সেন্টারে বৃহস্পতিবার দুপুর ১টায় এ তফসিল ঘোষণা করেন প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) কাজী রকিবউদ্দীন আহমদ।

ঘোষিত তফসিল অনুযায়ী মনোনয়নপত্র দাখিলের শেষদিন ১১ নভেম্বর। যাচাই-বাছাই ১৪ নভেম্বর এবং মনোনয়নপত্র প্রত্যাহারের শেষ তারিখ ২২ নভেম্বর।

সংবিধান অনুসার এ আসনে ১২ ডিসেম্বরের মধ্যে নির্বাচন অনুষ্ঠানের আইনী বাধ্যবাধকতা ছিল।

সিইসি জানান, নির্বাচনে রিটার্নিং অফিসারের দায়িত্ব পালন করবেন সিলেটের আঞ্চলিক নির্বাচন কর্মকর্তা। এ ছাড়া সহকারী রিটার্নিং অফিসারের দায়িত্ব পালন করবেন মৌলভীবাজার জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা ও রাজনগর উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা।

ভোটকক্ষে সাংবাদিক প্রবেশে অনুমতি লাগবে

তিনি জানান, নির্বাচনী পর্যবেক্ষক ও সাংবাদিক সার্বক্ষণিক ভোটকক্ষে অবস্থান করতে পারবেন না। তাদের ভ্রাম্যমাণ অবস্থায় চলাচল করতে হবে। তবে ভোটকক্ষে প্রবেশের আগে তাদের সহকারী প্রিসাইডিং অফিসার বা প্রিসাইডিং অফিসারের অনুমতি নিতে হবে। তাদের নিজ প্র্রতিষ্ঠানের পরিচয়পত্র ও নির্বাচন কমিশন বা রিটার্নিং অফিসার কর্তৃক প্রদান করা কার্ড থাকতে হবে।

শৃঙ্খলা রক্ষায় থাকবে পর্যাপ্ত আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্য

রকিবউদ্দীন জানান, অতীতের জাতীয় সংদসের নির্বাচনের ন্যায় ভোটকেন্দ্রে শান্তিশৃঙ্খলা বজায় রাখতে প্রয়োজনীয়সংখ্যক আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সদস্য মোতায়েন করা হবে।

তিনি জানান, নির্বাচনী এলাকায় মোবাইল/স্ট্রাইকিং ফোর্স হিসেবে পুলিশ, আর্মড পুলিশ ব্যাটালিয়ন (এপিবিএন), আনসার ও র‌্যাব দায়িত্ব পালন করবে। স্ট্রাইকিং ফোর্সের সঙ্গে একজন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটও থাকবেন। এ ছাড়া নির্বাচন সংক্রান্ত অপরাধের তাৎক্ষণিক বিচার করতে প্রয়োজনীসংখ্যক জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট নিয়োগ দেবে ইসি।

আচরণবিধি রক্ষায় নির্বাচনী তদন্ত কমিটি

সিইসি আরও জানান, আচরণবিধি লঙ্ঘনের বিষয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য যুগ্ম-জেলা জজের নেতৃত্বে দুই সদস্যের নির্বাচনী তদন্ত কমিটি গঠন করা হবে। ওই কমিটি প্রার্থীরা আচরণবিধি মানছেন কি-না তার দেখভাল করবেন। একই সঙ্গে নির্বাচনের পূর্বে সংক্ষুব্ধ ব্যক্তি অনিয়মের প্রতিকার চেয়ে কমিটির কাছে আবেদন করতে পারবেন।

প্রসঙ্গত, সিঙ্গাপুর জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ১৪ সেপ্টেম্বর স্থানীয় সময় সকাল ১০টা ৫৯ মিনিটে ৬৬ বছর বয়সী এই রাজনীতিবিদের মৃত্যু হয়।

নিউমোনিয়ায় আক্রান্ত হয়ে গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়ায় ৩ সেপ্টেম্বর সমাজকল্যাণমন্ত্রীকে রাজধানীর বারডেম হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে অবস্থার অবনতি হওয়ায় ৫ সেপ্টেম্বর তাকে এয়ার এ্যাম্বুলেন্সে করে সিঙ্গাপুর নেওয়া হয়। তার মৃত্যুর পর ওই আসন শূন্য হয়

 

পাঠকের মতামত...

Print Friendly, PDF & Email
Total Page Visits: 78 - Today Page Visits: 2

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*