Home » অর্থ ও বানিজ্য » একটি দুর্ঘটনার জন্য প্রযুক্তির ব্যবহার বাদ নয়

একটি দুর্ঘটনার জন্য প্রযুক্তির ব্যবহার বাদ নয়

বাংলাদেশ ব্যাংকের রিজার্ভ চুরির বিষয়ে সাবেক গভর্নর আতিউর রহমান বলেছেন, ‘একটি দুর্ঘটনা ঘটেছে বলেই প্রযুক্তি ব্যবহারে আমরা যেন অনীহা প্রকাশ না করি। প্রযুক্তি আমাদের লাগবে। ভয় পেলে চলবে না।’

আজ মঙ্গলবার বাংলাদেশ এশিয়াটিক সোসাইটির উদ্যোগে আয়োজিত অধ্যাপক শফিকুর রহমান স্মারক বক্তৃতায় প্রধান বক্তা হিসেবে আতিউর রহমান এসব কথা বলেন। প্রতিষ্ঠানটির মিলনায়তনে ওই অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

বাংলাদেশ ব্যাংকের রিজার্ভ চুরির ঘটনার সময় গভর্নর ছিলেন আতিউর রহমান। পরে পদত্যাগ করেন তিনি। এর প্রায় এক বছর পর তিনি জনসমক্ষে বক্তব্য দিলেন।

বক্তৃতার মূল বিষয় ছিল ‘কাউকে পেছনে ফেলে এগিয়ে যাব না : আর্থিক অন্তর্ভুক্তির পথে যাত্রা’। এ বিষয়ে আতিউর রহমান বলেন, আর্থিক অন্তর্ভুক্তি বাড়াতে গৃহীত উদ্যোগগুলো ইতিমধ্যেই সুফল দিতে শুরু করেছে। অর্থনীতি ও উন্নয়নের সব সূচকেই বাংলাদেশ অনেক দূর এগিয়েছে। তবে অর্জন অনেক হলেও বাংলাদেশের সামনে অনেক চ্যালেঞ্জ রয়েছে। ২০৩০ সালের মধ্যে উচ্চমধ্যম আয়ের দেশ হতে হলে বিনিয়োগের হার জিডিপির ৩৪ শতাংশ করতে হবে।

অনুষ্ঠানে বক্তব্য দেন সোসাইটির অধ্যাপক খন্দকার বজলুল হক, সাব্বির আহমেদ প্রমুখ।

ফেডারেল রিজার্ভ ব্যাংক অব নিউইয়র্কে থাকা বাংলাদেশ ব্যাংকের অ্যাকাউন্ট বা হিসাব থেকে গত বছরের ৫ ফেব্রুয়ারি (৪ ফেব্রুয়ারি দিবাগত রাতে) মোট ১০ কোটি ১০ লাখ মার্কিন ডলার চুরি হয়। সাইবার হামলা ঠেকানোর মতো ফায়ারওয়াল না থাকায় এবং সুইফটের সঙ্গে যুক্ত নেটওয়ার্ক সুইচের দুর্বলতার কারণে এ অর্থ চুরি হয়েছে। এর মধ্যে ফিলিপাইনে ৮ কোটি ১০ লাখ ডলার যায়। বাকি দুই কোটি ডলার যায় শ্রীলঙ্কায়। চুরি যাওয়া অর্থের মধ্যে বাংলাদেশ ব্যাংক শ্রীলঙ্কা থেকে দুই কোটি ডলার বাংলাদেশ ব্যাংকের হিসাবে ফিরে এসেছে। ফিলিপাইন থেকেও বেশ কিছু অর্থ ফেরত পাওয়া গেছে।

পাঠকের মতামত...

Print Friendly, PDF & Email
Total Page Visits: 56 - Today Page Visits: 1

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*