Home » শিক্ষা » শপিংমলে পরীক্ষা দিতে চায় শিক্ষার্থীরা!

শপিংমলে পরীক্ষা দিতে চায় শিক্ষার্থীরা!

বাংলার কন্ঠস্বর // দেশে গত তেরো মাস ধরে বন্ধ রয়েছে সকল শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান। করোনা সংক্রমণের কারণে দফায় দফায় বৃদ্ধি পেয়েছে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলা সময়। পিছিয়েছে স্কুল, কলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয়ের চলমান পরীক্ষাগুলো। দীর্ঘদিন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকার কারণে শিক্ষার্থীদের মাঝে দেখা দিয়েছে হতাশা, ক্ষোভ।

অনেক শিক্ষার্থী ইতোমধ্যে গিয়েছে ঝরে। শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান ছাড়া দেশের সকল প্রতিষ্ঠান খোলা রাখা হয়েছে স্বাস্থ্যবিধি মেনে। দোকানপাট, শপিংমল, বিনোদনকেন্দ্র স্বাস্থ্যবিধি মেনে খোলা রেখে স্কুল, কলেজে, বিশ্ববিদ্যালয় বন্ধ রাখার কারনে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেইসবুকে প্রায় সময় শিক্ষার্থীরা প্রকাশ করছেন ক্ষোভ।

অনেকেই সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে জানান যেহেতু স্বাস্থ্যবিধি মেনে শপিংমল খোলা রাখা যায়, সেখানে যেহেতু করোনা সংক্রমণ কম তাহলে তাদের পরীক্ষাগুলোও শপিংমলে নেয়া হোক বলে দাবি তাদের। এতে তাদের সেশনজটের লাগার সম্ভবনা থাকবে না বলে জানান শিক্ষার্থীরা।

রাজধানীর সরকারি তিতুমীর কলেজের শিক্ষার্থী ইবনে নাহিদ বলেন, দেশের একমাত্র জায়গা যেখানে স্বাস্থ্যবিধি মানা সম্ভব তা হলো শপিংমল। বিশ্ববিদ্যালয়ের যেহেতু করোনা সংক্রমণ বেশি হয় তাহলে শপিংমলেই আমাদের পরীক্ষা গুলো নিয়ে নেয়া হোক। শপিংমলে হ্যান্ডস্যানিটাইজার, মাস্ক নিশ্চিত করে পরীক্ষা দিতে পারলে করোনা থেকেও বাঁচা যাবে আবার আমাদের সেশসজটও কমে যাবে।

রাজধানীর নর্থ সাউথ বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী ফাহিম শিকদার অর্পূব তার সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেইসবুকে লিখেন, ‘স্কুল, কলেজ, বিশ্ববিদ্যালয়ের পরীক্ষা গুলো শপিংমলে নিয়ে নেয়া যায় কি না সে বিষয়ে যদি কর্তৃপক্ষের একটু বিবেচনা করা যায় কি না!

এই পোস্টে কমেন্টে একজন বলেন, পরীক্ষা দিতে দিতে বিরক্ত লাগলে একটু ঘুরে, নাস্তা করে, হালকা কেনাকাটা করে আবার পরীক্ষায় বসতেও পারবো।”

প্রসঙ্গত, শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের ঘোষণা অনুয়ায়ী আগামী ২৪মে থেকে খোলা হবে বিশ্ববিদ্যালয়।

উল্লেখ্য, গতবছর ১৭মার্চ থেকে করোনা সংক্রমণের ফলে দেশের সকল শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ রাখা হয়েছে। অর্থনৈতিক দিক বিবেচনা লকডাউন ছাড়া বাকি সময় অন্যসব প্রতিষ্ঠান খোলা রাখা হয়েছে।

শিক্ষার্থীরা বলছেন, অর্থনৈতিক দিক বিবেচনায় শপিংমল ইত্যাদি খোলা রাখতে পারলে আমাদের ভবিষ্যতের কথা চিন্তা করে স্কুল কলেজে, বিশ্ববিদ্যালয় কেনো খুলে দেয়া হবে না? স্কুল, কলেজেও স্বাস্থ্যবিধি মানা সম্ভব।

পাঠকের মতামত...

Print Friendly, PDF & Email
Total Page Visits: 56 - Today Page Visits: 1

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*